সংবাদ শিরোনাম
Home / সারাদেশ / একজন সফল উদোক্তার গল্প!

একজন সফল উদোক্তার গল্প!

ক্রাইম প্রতিদিন, মোঃ ইসমত দ্দোহা, লক্ষ্ণীপুর : মোঃ ওমর ফারুক, একজন তরুণ সফল উদোক্তা। লক্ষ্ণীপুর সদর উপজেলার বৃহত্তম মান্দারী বাজারে যার ব্যবসায়ীক কর্মকাণ্ড। অবশ্য শুরুটা এমন ছিলনা। শিক্ষা জীবন শেষ করার পরপরই পরিবারের বড় ছেলে হওয়ায়, পরিবারের দায়িত্ব নিতে অনিচ্ছা সত্বেও বিদেশ যাএা। মন খারাপ হলেও কষ্ট করে প্রবাসে থাকার চেষ্টা, মানিয়ে নেওয়ার চেষ্টায় কেটে গেল পাঁচটি বছর। বিদেশে থাকলেও মন পড়ে থাকতো দেশেই। ফারুকের ইচ্ছে ছিলো দেশেই নিজ উদ্যেগে দেশেই প্রতিষ্ঠিত হওয়ার।

অবশ্য বিদেশ যাওয়ার আগেই ছাএাবস্হায় মোবাইল টেলিকম, ইলেকট্রনিক বিষয়ের উপর প্রশিক্ষণ নিয়ে ছিলো। প্রশিক্ষণ নেওয়ার পর বান্দরবান, কুয়াকাটায় কাজ করেন আরেক ইন্জিনিয়ার বন্ধু রুবেলের সাথে।

প্রবাস জীবনের ইতি টেনে গত চার বছরে তিল তিল করে নিজেকে আবার গড়ে তুলেছেন ফারুক। নিজে উদোক্তা হওয়ার স্বপ্ন পূরনের পাশাপাশি, অনেক শিক্ষিত বেকার তরুণ যুবকদের প্রশিক্ষণের মাধ্যমে কর্মসংস্থানের পথ দেখিয়ে দিচ্ছেন ফারুক।

পশ্চিম মান্দারী বাজারে “রাফি টেলিকম “ব্যবসা প্রতিষ্ঠানেই চলে প্রশিক্ষণ ও ব্যবসায়ীক কর্মকাণ্ড। এখন শুধু মাএ মোবাইলের উপর প্রশিক্ষণ দেওয়া হচ্ছে, ভবিষ্যতে আরোও বড় পরিসর বৃদ্ধি করে কম্পিউটার ও ইলেকট্রনিক বিষয়ে প্রশিক্ষণ দেওয়ার পরিকল্পনার কাজ যাচ্ছেন ফারুক।

“রাফি টেলিকম “সদর উপজেলার মান্দারী বাজারে ক্রেতা সাধারণের কাছে আস্হার একটি ব্যবসা প্রতিষ্ঠান। এখানে সুলভ মূল্যে মোবাইল সার্ভিসং, মোবাইল বিক্রি, মোবাইল পার্স, ফ্লেক্সি লোড, বিকাশসহ সকল প্রকার নিত্য প্রয়োজনীয় ইলেকট্রনিকস্ সামগ্রী পাওয়া যায়।

ক্রাইম প্রতিদিনের সাথে আলাপকালে ফারুক বলেন, আমাদের দেশের তরুণ, যুবকরা যে টাকা খরচ করে প্রবাসে আসে আর যে পরিশ্রম করে তা দেশে করলেও অনেক ভালো থাকতে পারবে পরিবার, পরিজন নিয়ে।

তিনি আরও বলেন সরকারি আর্থিক ব্যবস্থাপনা সহজতর করে উদোক্তাদেকে যদি সহযোগিতা দেওয়া যায়, তাহলে তাদের মাধ্যমেও অনেক কর্মসংস্থান সৃষ্টি করে বেকার সমস্যার সমাধান করা সম্ভব।

Print Friendly, PDF & Email