Home / সারাদেশ / নড়াইলে দুই গ্রুপের হামলায় ২০ বাড়ি ভাঙচুর : পুলিশ মোতায়েন

নড়াইলে দুই গ্রুপের হামলায় ২০ বাড়ি ভাঙচুর : পুলিশ মোতায়েন

ক্রাইম প্রতিদিন, উজ্জ্বল রায়, নড়াইল : জানা গেছে, মঙ্গলবার ভোর ৫টার দিকে আমাদা গ্রামের কাশেম আলী খানের গ্রুপের লোকজন রামদা, দা, ঢাল সড়কিসহ দেশীয় অস্ত্রশস্ত্রাদি নিয়ে প্রতিপক্ষ আলী আহম্মেদ খানের পক্ষের সমর্থকদের বাড়িতে হামলা চালায়।

হামলাকালীরা আমাদা গ্রামের ফেদু মল্লিক, জুলাই মল্লিক, আলা মল্লিক, বীরু মল্লিক, বিষু মল্লিক, আব্দুল হামিদ মল্লিক ও কামালপ্রতাপ গ্রামের নাজমুল মল্লিক, শরিফুল মল্লিক, মাজহারুল ইসলাম, রশিদ মল্লিক, ইদ্রিস মল্লিক, মন্টু মল্লিক, তারিকুল মল্লিক, মুস্তাক মল্লিকসহ অন্তত ২০টি বাড়ি ভাঙচুর করে।

নড়াইলে প্রতিপক্ষের হামলায় দুই গ্রামের ২০ বাড়ি ক্ষতিগ্রস্ত এলাকায় আধিপত্য বিস্তারকে কেন্দ্র করে নড়াইলের আমাদা ও কামাল প্রতাপ গ্রামে প্রতিপক্ষের হামলায় অন্তত ২০টি বাড়িঘর ভাঙচুর করা হয়েছে। এসময় ওইসব পরিবারের আসবাবপত্রসহ মূল্যবান জিনিসপত্র ভাঙচুর করা হয়।

জানা গেছে, মঙ্গলবার ভোর ৫টার দিকে আমাদা গ্রামের কাশেম আলী খানের গ্রুপের লোকজন রামদা, দা, ঢাল সড়কিসহ দেশীয় অস্ত্রশস্ত্রাদি নিয়ে প্রতিপক্ষ আলী আহম্মেদ খানের পক্ষের সমর্থকদের বাড়িতে হামলা চালায়। হামলাকালীরা আমাদা গ্রামের ফেদু মল্লিক, জুলাই মল্লিক, আলা মল্লিক, বীরু মল্লিক, বিষু মল্লিক, আব্দুল হামিদ মল্লিক ও কামালপ্রতাপ গ্রামের নাজমুল মল্লিক, শরিফুল মল্লিক, মাজহারুল ইসলাম, রশিদ মল্লিক, ইদ্রিস মল্লিক, মন্টু মল্লিক, তারিকুল মল্লিক, মুস্তাক মল্লিকসহ অন্তত ২০টি বাড়ি ভাঙচুর করে। এসময় বাড়ির মূল্যবান জিনিসপত্র ভাঙচুর ও লুটপাট করে নিয়ে যায় বলে ক্ষতিগ্রস্তরা জানান। এর আগেও কয়েকদফা বাড়িঘর ভাঙচুরের ঘটনায় থানায় কয়েকটি মামলা রয়েছে।

নড়াইল সদর থানার ওসি মো. আনোয়ার হোসেন ক্রাইম প্রতিদিনকে জানান, আমাদা গ্রামের কাশেম আলী খা ও আলী আহম্মেদ খান গ্রুপের মধ্যে সামাজিক দ্বন্দ্ব নিয়ে দীর্ঘদিন ধরে বিরোধ চলে আসছে। এর জের ধরে হামলার ঘটনা ঘটেছে। এলাকায় পুলিশ মোতায়েন করা হয়েছে। ঘটনার সাথে জড়িতদের আটকের চেষ্টা চলছে।

Print Friendly, PDF & Email
শেয়ার করে আমাদের সঙ্গে থাকুন
  • 23
    Shares