Home / সারাদেশ / নড়াইলে সংঘর্ষ, ভাংচুর, লুটপাট, আহত ৮ : পুলিশ মোতায়েন, গ্রেফতার ২

নড়াইলে সংঘর্ষ, ভাংচুর, লুটপাট, আহত ৮ : পুলিশ মোতায়েন, গ্রেফতার ২

ক্রাইম প্রতিদিন, উজ্জ্বল রায়, নড়াইল : নড়াইলের পুরুলিয়া গ্রামে দুই পক্ষের মধ্যে সংঘর্ষ হয়েছে। চলন্ত মোটরসাইকেলে ফুটবল লাগার ঘটনা নিয়ে সংঘর্ষে আহত আট জনকে নড়াইল সদর হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। এ ঘটনার জের ধরে আজ সকালে বাড়ি-ঘর ভাংচুরের ঘটনাও ঘটেছে। পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে এলাকায় পুলিশ মোতায়েন করা হয়েছে। এলাকায় গিয়ে পুরুলিয়া মোড়ের দোকান-পাট বন্ধ দেখা যায়।

এলাকায় পুলিশ টহল দিলেও থমথমে অবস্থা বিরাজ করছে। গ্রেফতার এড়াতে অনেকে বাড়ি-ঘর ছেড়েছেন। এলাকার লোকজনের সঙ্গে কথা বলে জানা গেছে, নড়াইল-কালিয়া সড়কের পুরুলিয়া মোড়ের রাস্তার পাশে কয়েকটি বাচ্চা ফুটবল খেলছিল। রাস্তা দিয়ে লক্ষ্মীপুর গ্রামের মহসিন শেখ নামে একজন মোটরসাইকেল চালিয়ে যাচ্ছিলেন। এ সময় বলটি তার সাইকেলে লাগে। এতে সে ক্ষিপ্ত হয়ে ওই বাচ্চাটির বাবা-মা তুলে অকথ্য ভাষায় গালমন্দ করে। বাচ্চাটির মা তা শুনতে পেয়ে মহসিনকেও পাল্টা গালমন্দ করেন। এর জের ধরে শুক্রবার রাত সাড়ে আটটার দিকে লক্ষ্মীপুর গ্রামের কুবাদ শেখ, কামরুল সরদার, আলী মোল্লার নেতৃত্বে কয়েকশ’ লোক দেশি অস্ত্র-শস্ত্রে সজ্জিত হয়ে পুরুলিয়া গ্রামে হামলা করে। এ সময় মনিরুল মোল্লা (৪০), জাকারিয়া মোল্লা (৩৮), ইউসুফ মোল্লা (৪২), তৈয়বুর শেখ (৪০), মাছুম শেখ (৩৫), শাহাজান মোল্লা (৩৬), ইয়াছিন মিনা (৩৩), শওকত মিনা (৪২) আহত হন। আহতদের নড়াইল সদর হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। খবর পেয়ে রাতেই এলাকায় পুলিশ মোতায়েন করা হয়। এদিকে, আজ শনিবার কুবাদ শেখের লোকজন পুরুলিয়া গ্রামে আবার হামলা করে বলে এলাকাবাসী জানান। এ সময় মনিরুল মোল্লা, জাকারিয়া মোল্লা, ইউসুফ মোল্লা, তৈয়বুর শেখ, ইবাদত শেখের বাড়িসহ মোট সাতটি বাড়িতে হামলা, ভাংচুর ও লুটপাট হয়। পুরুলিয়া গ্রামের ছলেমান শেখ (৭২) জানান, তুচ্ছ ব্যাপার নিয়ে তুলকালাম হয়েছে। ৬-৭টি বাড়ি-ঘর ভাংচুর, লুটপাট করা হয়েছে। পুরুলিয়া মধ্যপাড়ার ইবাদত শেখের স্ত্রী দোলেনা বেগম বলেন, লক্ষ্মীপুর গ্রামের কুবাদ মেম্বর, আব্দুল্লাহ, কামরুল সরদার, পুরুলিয়া গ্রামের হামজা মোল্লা, ওমর মোল্লা, শরফু শেখসহ এক-দেড়শ’ মানুষ দেশি অস্ত্রশস্ত্র নিয়ে কয়েকটি বাড়িতে হামলা চালিয়ে ভাংচুরসহ লুটপাট করে।

তিনি বলেন, ‘আমার বাড়ি-ঘর ভাংচুর করে সব লুটপাট করেছে। আমার প্রায় চার থেকে পাঁচ লাখ টাকার ক্ষতি হয়েছে।’জানতে চাইলে কুবাদ শেখ বলেন, ‘পুরুলিয়া গ্রামের আনিচুর রহমান ও তার লোকজন আগে আলাউদ্দীনের বাড়ি ভাংচুর ও লুটপাট করে। এ কারণে গ্রামের লোকজন আজ শনিবার তাদের বাড়ি-ঘরে হামলা চালায়।’

নড়াইলের সহকারী পুলিশ সুপার মো. জালাল উদ্দীন ঘটনা নিশ্চিত করে ক্রাইম প্রতিদিনকে জানান, ‘এখন পরিস্থিতি পুলিশের নিয়ন্ত্রণে রয়েছে। ঘটনার সঙ্গে জড়িত সন্দেহে লক্ষ্মীপুর গ্রামের আনোয়ার হোসেনের ছেলে বায়জিদ হোসেন এবং শহীদ মোল্লার ছেলে প্রিন্স মাহামুদকে আটক করা হয়েছে।’

Print Friendly, PDF & Email

এই মুহূর্তে অন্যরা যা পড়ছে

শেয়ার করে আমাদের সঙ্গে থাকুন
  • 6
    Shares
x

Check Also

নোয়াখালীতে ভূমি বিরোধের জেরে হামলা, দখল, ভাংচুর, আহত ১৫

ক্রাইম প্রতিদিন, সালাহ উদ্দিন সুমন. নোয়াখালী : ...