সংবাদ শিরোনাম
Home / ক্রাইম প্রতিদিন / ভয় দেখিয়ে স্কুলছাত্রীকে ধর্ষণ, যুবক আটক

ভয় দেখিয়ে স্কুলছাত্রীকে ধর্ষণ, যুবক আটক

ক্রাইম প্রতিদিন, দিনাজপুর : দিনাজপুরের বিরলের শালবনে সঙ্গীকে ভয় দেখিয়ে ঘুরতে আসা স্কুলছাত্রীকে পার্শ্ববর্তী ভুট্টাক্ষেতে নিয়ে ধর্ষণ করেছে এক যুবক। এ সময় তাদের সঙ্গে থাকা মোবাইল ও টাকা ছিনিয়ে নেয় ওই অভিযুক্ত যুবক। পরে সঙ্গীর সহযোগিতায় স্থানীয়রা অভিযুক্ত ওই যুবককে আটক করে স্থানীয় ইউনিয়ন পরিষদে সোপর্দ করে।

অভিযুক্ত বাবুল (৪০) উপজেলার ধর্মপুর নয়াপাড়ার সফির মোহাম্মদের ছেলে। আর নির্যাতিতা স্কুলছাত্রী (১৩) উপজেলার ফরক্কাবাদ ইউপির দামাইল গ্রামের বাসিন্দা ও সপ্তম শ্রেণির ছাত্রী।

মঙ্গলবার দুপুরে উপজেলার ধর্মপুর ইউপির ঐতিহ্যবাহী কালিয়াগঞ্জ শালবনে এ ঘটনা ঘটে।

জানাযায়,উপজেলার ৫নং বিরল ইউপির সাবইল গ্রামের আহসান আলীর ছেলে ইমরানের (২২) সঙ্গে শালবন দেখতে এসেছিল। শালবনে ঘোরাঘুরির এক ফাঁকে ওই স্কুলছাত্রীকে আটক করে তার বন্ধুকে ভয়ভীতি দেখিয়ে মোবাইল ফোন ও নগদ টাকা ছিনিয়ে নেয় অভিযুক্ত বাবুল।

বন্ধু ইমরান প্রতিবাদ করতে চাইলে তাকে অনৈতিক সম্পর্কের বেড়াজালে ফাঁসিয়ে স্থানীয় লোকজনের দ্বারা গণপিটুনির ভয়ভীতি দেখিয়ে জীবন বাঁচানোর জন্য পালাতে বলে।

এ সময় ইমরান জীবন বাঁচাতে শালবন থেকে পালিয়ে পার্শ্ববর্তী ধানক্ষেতে স্থানীয় যুবক হেলাল, সাগর, রাসেল, গোলাপ, মোমিনুল ও সানোয়ারকে সঙ্গে নিয়ে বান্ধবীকে শালবনে খুঁজতে যায়।

পরে সেখানে না পেয়ে পার্শ্ববর্তী ভুট্টাক্ষেতে স্কুলছাত্রীসহ বাবুলকে দেখতে পায়। পরে স্থানীয়রা ধর্ষণের লোমহর্ষক কাহিনী শুনে স্থানীয় ইউপি চেয়ারম্যানের কাছে অভিযুক্ত বাবুলসহ ভিকটিমকে সোপর্দ করে।

স্থানীয় ইউপি চেয়ারম্যান ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে জানান, ভিকটিমের পরিবারকে সংবাদ দেয়া হয়েছে। অভিভাবক এলে আইনগত ব্যবস্থা গ্রহণের জন্য তাদের থানায় প্রেরণ করা হবে।

তাদের থানায় সোপর্দের প্রস্তুতি চলছিল। এ সময় নির্যাতিতাসহ উপস্থিত জনতা অভিযুক্ত বাবুলের উপযুক্ত শাস্তির দাবি জানিয়েছেন।

Print Friendly, PDF & Email

এই মুহূর্তে অন্যরা যা পড়ছে