সংবাদ শিরোনাম
Home / ক্রাইম প্রতিদিন / হাতিয়ায় সন্ত্রাসীর গুলিতে মাদরাসা ছাত্র নিহত 

হাতিয়ায় সন্ত্রাসীর গুলিতে মাদরাসা ছাত্র নিহত 

ক্রাইম প্রতিদিন, সালাহ উদ্দিন সুমন, নোয়াখালী : নোয়াখালীর বিচ্ছিন্ন দ্বীপ উপজেলা হাতিয়ার খবির মিয়ার বাজারে সন্ত্রাসীর গুলিতে মিশকাতুর রহমান নীরব (১০) নামে এক মাদরাসা ছাত্র নিহত হয়েছে। এ ঘটনায় গুলিবিদ্ধ হয়েছে নীরবের বাবা মিরাজ উদ্দিন।

নিহত নীরব রহমানিয়া মাদরাসার ৬ষ্ঠ শ্রেণির ছাত্র ও পৌর এলাকার ৪নং ওয়াডের বেজুগালিয়া গ্রামের বাসিন্দা।

এ সময় সন্ত্রাসীদের লাঠি ও অস্ত্রের আঘাতে নীরবের মা শেফালী বেগম ( ২৮), রাশেদুল হক নান্টু (৩৫) ও শাহাদাৎ হোসেন (৩০) আহত হয়েছেন।

আহতদের হাতিয়া উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করা হলে নীরব ও তার বাবাকে উন্নত চিকিৎসার জন্য নোয়াখালী ২৫০ শয্যা বিশিষ্ট জেনারেল হাসপাতালে পাঠানো হয়। কিন্তু সেখানে নীরবকে মৃত ঘোষণা করেন চিকিৎসক।

নিহতের চাচা বাশার জানান, তার ভাই মিরাজ উদ্দিন স্থানীয় খবির মিয়ার বাজারে রিকশার ব্যাটারী চার্জ দেয়ার ব্যবসা করত। ওই ব্যবসা নিয়ে মিরাজের সঙ্গে স্থানীয় জিল্লু নামের এক ব্যক্তির দ্বন্ধ ছিল।

কয়েকদিন আগে জিল্লু মিরাজের কাছে মোটা অংকের চাঁদা দাবী করে। পরে অবস্থা বেগতিক দেখে মিরাজ তার ব্যবসা প্রতিষ্ঠান বন্ধ করে ব্যাটারী ও মেশিনপত্র বাড়ীতে নিয়ে আসে। এর জের ধরে রবিবার রাত ৮টার দিকে জিল্লুর সন্ত্রাসী বাহিনী মিরাজের বাড়ীতে হামলা করে। এসময় মিরাজ উদ্দিন ও তার ছেলে নিরব উদ্দিন রান্না ঘরে বসা অবস্থায় ছিল। হামলাকারী সন্ত্রাসীদের ছোঁড়া এলোপাতাড়ি গুলিতে নিরব উদ্দিন ও তার পিতা মিরাজ উদ্দিন গুলিবিদ্ধ হয়।

খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে পুলিশ পৌঁছালে সন্ত্রাসীরা পালিয়ে যায়। পরে স্থানীয়দের সহযোগিতায় প্রথমে মিরাজ উদ্দিন ও তার ছেলে নিরবকে হাতিয়া উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করা হয়। পরে গুলিবিদ্ধ নিরবের অবস্থার অবনতি হওয়ায় চিকিৎসকদের পরামর্শে উন্নত চিকিৎসার জন্য নোয়াখালী জেনারেল হাসপাতালে নেওয়ার পথে নদীতে তার মৃত্যু হয়। মিরাজ উদ্দিনকে আশংকাজনক অবস্থায় ঢাকায় প্রেরন করা হয়েছে।

হাতিয়া থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. কামরুজ্জামান শিকদার জানান, সন্ত্রাসী হামলার ঘটনায় মিরাজ ও তার ছেলে নিরব গুলিবিদ্ধ হয়েছে। গুলিবিদ্ধ নিরবকে নোয়াখালী নেওয়ার পথে তার মৃত্যু হয়। এ ঘটনায় নিহতের পরিবারের পক্ষ থেকে মামলার প্রস্তুতি চলছে। ঘটনায় প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।

Print Friendly, PDF & Email

এই মুহূর্তে অন্যরা যা পড়ছে