Home / আন্তর্জাতিক / সাংবাদিককে হত্যার পর বলল ইচ্ছাকৃতভাবে গুলি করিনি

সাংবাদিককে হত্যার পর বলল ইচ্ছাকৃতভাবে গুলি করিনি

ক্রাইম প্রতিদিন, ডেস্ক : বড় বড় অক্ষরে ‘প্রেস’ লেখা থাকার পরও সাংবাদিক ইয়াসির মুরতজাকে গুলি করে হত্যা করা হয়েছে। এ নিয়ে বিশ্বজুড়ে সমালোচনার দখলদার ইসরাইলি সেনাবাহিনী বলছে- তারা ইচ্ছাকৃতভাবে ইয়াসিরকে গুলি করেনি।

এখন ঘটনাটির পর্যালোচনা ও তদন্ত করা হবে বলে জানিয়েছে ইসরাইলি প্রতিরক্ষা বাহিনী-আইডিএফ।

এক বিবৃতিতে তারা বলেছে, আইডিএফ ইচ্ছাকৃতভাবে সাংবাদিকদের গুলি করেনি। সাংবাদিকদের গুলি করার ঘটনা তাদের কাছে অজানা ছিল।

ইহুদিবাদী রাষ্ট্রটির সেনাবাহিনী বলেছে, এমন ঘটনার সঙ্গে ইসরাইলি সেনাবাহিনী পরিচিত নয়। তারা বিষয়টি পরীক্ষা-নিরীক্ষা করে দেখছেন। খবর জেরুজালেম পোস্টের।

এদিকে প্যারিসভিত্তিক রিপোর্টাস উইদাউট বার্ডারসের সেক্রেটারি ক্রিস্টোফার ডেলিওর বলেছেন, মুরতজাকে পরিকল্পিতভাবে গুলি করে হত্যা করা হয়েছে।

ইসরাইলের সাংবাদিক ইউনিয়ন মুরতজা হত্যাকাণ্ডের ব্যাখ্যা দাবি করে বলেছে, একটি গণতান্ত্রিক দেশের সেনাবাহিনী কখনও দায়িত্বপালনরত সাংবাদিককে গুলি করে হত্যা করতে পারে না।

মুরতজার ভাই সাংবাদিক মুতাজেম বলেন, যখন তার শরীরে গুলি লাগে, তখন আমি তার পাশেই ছিলাম। সাংবাদিকদের লক্ষ্য করেই ইসরাইলি বাহিনী গুলি ছুড়েছিল।

ফ্রিল্যান্স সাংবাদিক আশরাফ আবু ওমর বলেন, তিনিও মুরতজার পাশে ছিলেন। সেখানে তারা দুজনেই হেলমেট ও সুরক্ষা জ্যাকেট পরে ছিলেন।

তিনি বলেন, আমাদের জ্যাকেটে বড় বড় অক্ষরে প্রেস লেখা ছিল। সীমান্ত থেকে প্রায় আড়াইশ মিটার দূরে আমরা বিক্ষোভকারীদের টায়ার পোড়ানো ছবি তুলছিলাম।

তখন ইসরাইলিরা এলোপাতাড়ি গুলি ছুড়তে শুরু করলে আমরা দৌড় দিই। হঠাৎ সে মাটিতে পড়ে যায়। আমি চিৎকার করে বলি, মুরতজা তুমি ঠিক আছ? তার কাছ থেকে কোনো জবাব আসেনি। তার শরীর রক্তে ভেসে যাচ্ছিল বলে জানান সাংবাদিক আশরাফ আবু ওমর।

Print Friendly, PDF & Email

এই মুহূর্তে অন্যরা যা পড়ছে

শেয়ার করে আমাদের সঙ্গে থাকুন
  • 128
    Shares
x

Check Also

সাংবাদিক নির্যাতনের প্রতিবাদে শাহরাস্তি প্রেসক্লাবের মানববন্ধন

ক্রাইম প্রতিদিন, মোঃ কামরুজ্জামান সেন্টু, শাহরাস্তি : সারাদেশে পেশাদার ...