< html lang=”en-us”> < PropellerAds
Breaking News

অবশেষে পঙ্গুযোদ্ধা আজিজার রহমান পুনর্বাসিত হচ্ছেন

ক্রাইম প্রতিদিন : অবশেষে উলিপুরের পঙ্গুযোদ্ধা আজিজার রহমান পুনর্বাসিত হচ্ছেন। উপজেলা নির্বাহী অফিসার মোহাম্মদ শফিকুল ইসলাম মুক্তিযোদ্ধার সুবিধা বঞ্চিত আজিজার রহমানকে পুনর্বাসন করার উদ্দ্যোগ গ্রহন করেন।
পঙ্গুযোদ্ধা আজিজার রহমান স্বাধীনতার ৪৬ বছর অতিবাহিত হওয়ার পবও তিনি মুক্তিযোদ্ধার তালিকায় নাম লেখাতে পারেনি। ঢাকায় ভিক্ষা বৃত্তি করে প্রতিবন্ধী স্ত্রী, ২ কন্যা ও ১ পুত্র সন্তান সহ মোট ৫ জনের ভরন-পোষন চালিয়ে আসছিলেন। এ সংক্রান্ত একটি প্রতিবেদন বিভিন্ন পত্রিকায় প্রকাশিত হলে স্পর্শকাতর এ বিষয়টি কুড়িগ্রাম জেলা প্রশাসক আবু সালেহ মোহাম্মদ ফেরদৌস খাঁন এর দৃষ্টিগোচর হয়। তিনি উলিপুর উপজেলা নির্বাহী অফিসারকে বিষয়টি ক্ষতিয়ে দেখার নির্দেশ দেন। সে মোতাবেক উপজেলা নির্বাহী অফিসার মোহাম্মদ শফিকুল ইসলাম গত ১০ জুলাই সোমবার সকাল ১০ টায় পঙ্গুযোদ্ধা আজিজার রহমানকে তাঁর কার্যালয়ে ডেকে নিয়ে দীর্ঘক্ষন কথা বলে এবং তাঁর পারিবারিক জীবনের খোঁজ খবর নেন। তিনি পঙ্গুযোদ্ধা আজিজার রহমানের নিকট বাড়ী ভিটার কাগজপত্র চেয়েছেন। জমির কাগজ পেলে যত দ্রুত সম্ভব তাঁকে বাড়ী করে দেয়া হবে। এ ছাড়া তাঁর ভিক্ষা বৃত্তি বন্ধ করতে হবে। প্রয়োজন বোধে নিজেকে আতœনির্ভরশীল করার লক্ষ্যে স্থায়ী কর্মসংস্থান তৈরীর প্রতিশ্রুতি ব্যক্ত করেন। যাতে তাকে আর ভিক্ষা বৃত্তি করতে না হয়। সঠিক সময়ে আবেদন করতে না পারায় তাঁকে মুক্তি যোদ্ধার তালিকায় অন্তর্ভূক্ত করা সম্ভব হয়নি। তবে সরকার যদি পরবর্তীতে অন্তর্ভূক্তির সুযোগ দেন তখন তাঁকে অন্তর্ভূক্ত করা যাবে।
বয়সের ভারে নুয়ে পরা আজিজার রহমান বলেন, মৃত্যুর পূর্বেও যদি মুক্তিযোদ্ধার তালিকায় তার নাম অন্তর্ভূক্ত হতো তাহলে মৃত্যুর পরেও তার আতœা শান্তি পেত। মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর নিকট এটাই তাঁর আকুতি। ২ কন্যার বিয়ে দিতে পারলে তাঁর আর কোন দুঃখ থাকবে না বলে তিনি জানান। এ সময় উপস্থিত ছিলেন দৈনিক কুড়িগ্রাম খবরের ভ্রাম্যমান প্রতিনিধি হাফিজ সেলিম ও দৈনিক আলোকিত বাংলাদেশের উলিপুর সংবাদদাতা ফয়জার রহমান রানু।

রুহুল আমিন রুকু/কুড়িগ্রাম

শেয়ার করে আমাদের সঙ্গে থাকুন
x

Check Also

খালেদা জিয়ার ভাগ্যে কি আছে?

ক্রাইম প্রতিদিন, ঢাকা : দেখতে দেখতে নির্জন কারাগারে এক বছর ...