অ্যাড. জাহিদুল ইসলাম রোমান (ফাইল ছবি)

ফরিদগঞ্জে নির্বাচনকে সামনে রেখে তৈরি হচ্ছে যুবফোর্স

ক্রাইম প্রতিদিন, আতাউর রহমান সোহাগ, ফরিদগঞ্জ : আগামী জাতীয় সংসদ নির্বাচনে নৌকা প্রতীকের জয় নিশ্চিত করতে প্রতিটি এলাকায় যুবফোর্স গঠনের নির্দেশ দিলেন চাঁদপুর ৪ (ফরিদগঞ্জ) আসনে মনোনয়ন প্রত্যাশী সাবেক এমপি পুত্র সাবেক ছাত্র নেতা এড. জাহিদুল ইসলাম রোমান।

বর্তমানে দলের কোন পদ পদবিতে না থেকেও আওয়ামী সমর্থিত তরুণদের প্রিয়ভাজন এ নেতার ঘোষণায় যুবসমাজের মধ্যে নতুন উদ্দীপনা দেখা দিয়েছে।

শুক্রবার (৭ সেপ্টেম্বর) বিকেলে উপজেলা সদরের ডাক বাংলা প্রাঙ্গনে আয়োজিত এক বৈঠকে নেতাকর্মীদের উদ্দেশ্যে দেয়া বক্তব্যে যুব ফোর্স গঠন করতে ওই নির্দেশনা দিয়েছে।

সে মতে শনিবার (৮ সেপ্টেম্বর) থেকে জাহিদুল ইসলাম রোমানের নের্তৃত্বে নৌকা প্রতীকের জয় নিশ্চিত করতে প্রতিটি এলাকায় যুবফোর্স গঠনের কার্যক্রম চলছে বলে নিশ্চিত হওয়া গেছে।

দলের নেতাকর্মীরা জানায়, আগামী জাতায় সংসদ নির্বাচনে বর্তমান আওয়ামীলীগের মনোনয়ন প্রত্যাশীরা বেশ জোরে সোরেই দলের স্বার্থে নানাবিধ প্রচারণা করছে। এরই অংশ হিসেবে গত শুক্রবার আওয়ামীলীগের এক মনোনয়ন প্রত্যাশী ্এড. জাহিদুল ইসলাম রোমানের অনুসারী নেতাকমীরা তাকে মোটর সাইকেল শোভাযাত্রা নিয়ে ডাক বাংলো চত্বরে জড়ো হন।

এক পর্যায়ে রোমানের নের্তৃত্বে আসা নেতাকর্মীরা রোমান ভাইয়ের সালাম নিন , নৌকা মার্কায় ভোট দিন শ্লোগান নিয়ে মুখরিত করে তোলেন।

পরে আয়োজিত এক বৈঠকে জাহিদুল ইসলাম রোমান দলের নেতাকর্মীদের উদ্দেশ্যে বক্তব্য দেন।

বক্তব্যে রোমান বলেন, চাঁদপুর ৪ ফরিদগঞ্জ আসনে আওয়ামীগ থেকে জননেত্রী শেখ হাসিনা যাকেই নৌকা দেয়। জননেত্রী শেখ হাসিনাকে আবার প্রধান মন্ত্রী করতে সেই নৌকা প্রতীকের জয় নিশ্চিত করে আমরা ঘরে ফিরবো। এই অঙ্গীকার নিয়ে এখন থেকে প্রতিটি এলাকায় যুবফোর্স গঠন করতে হবে।

এ সময় উপস্থিত ছিলেন চাঁদপুর জেলা পরিষদের সদস্য পৌর আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক সাইফুল ইসলাম রিপন, প্রবীন শিক্ষক মুক্তিযোদ্ধা তবিবুল্লাহ, পৌর আওয়ামীলীগের সাবেক সাধারন সম্পাদক মনির হোসেন, যুব নেতা নূরের রহমান সুমন পাটওয়ারী, বুলবুল আহাম্মেদ প্রমুখ

এদিকে একটি সূত্র জানিয়েছে, দলের মনোনয়ন না পেলেও জৈনিক এক প্রভাবশালী প্রার্থী দলের বিরুদ্ধে গিয়ে স্বতন্ত্র প্রার্থী হিসেবে নির্বাচন করার জন্য পর্দার অন্তরালে কিছু নেতাকর্মীদের নিয়ে শলাপরামর্শ নিয়ে চলছে গুঞ্জন। স্বতন্ত্র প্রার্থী হিসেবে মনোনয়ন দাখিল করতে ইতিমধ্যে পছন্দের বিভিন্ন ভোটারের আইডি কার্ড ও ছবি সংগ্রহ করা হয়েছে বলে জানা গেছে।

এ বিষয়টি ফাঁস হয়ে যাওয়ার পর অনেকেই বলেছেন দলের সুঃসময়ে থাকবে আবার দলের দুঃসময়ে দলের বিরুদ্ধে গিয়ে স্বতন্ত্র প্রার্থী হিসেবে থেকে দলের ক্ষতি করার সময় আর এখন নেই। তাই অনেকে নেতাকর্মীই এখন দলের মূল ¯্রােেেতর বাহিরে না যাওয়া দৃঢ় প্রত্যয় ব্যক্ত করছেন।

উপজেলা ছাত্রলীগের সাবেক সভাপতি আবুল হাসনাত চাঁদপুর টাইমসকে বলেন, ‘নৌকা যার আমরা তার। এই শ্লোাগান সামনে রেখে আমরা দলের নেত্রী শেখ হাসিনাকে আবার প্রধানমন্ত্রী করতে চাই। তাই নেত্রী যাকেই নৌকা দেয় দলের অস্তিত্ব রক্ষার স্বার্থে সকল ভেদাভেদ ভুলে দলের সবাই ঐক্যবদ্ধ হয়ে সেই নৌকার প্রতীকের জয় নিশ্চিত করা ছাড়া আমাদের আর কোন বিকল্প নেই।’

ফরিদগঞ্জে হঠাৎ যুব ফোর্স গঠনের নির্দেশনার উদ্দেশ্য কি ? এমন প্রশ্নের জবাবে চাঁদপুর এড. জাহিদুল ইসলাম রোমান চাঁদপুর টাইমসকে বলেন, আগামী জাতীয় সংসদ নির্বাচনটা হলো দলের নেত্রী শেখ হাসিনাকে আবার প্রধানমন্ত্রী করার নির্বাচন।

তাই নেত্রীকে যদি আবারো প্রধানমন্ত্রী করতে না পারি তাহলে দলের বড় পদে থকে কারো কোন লাভ নেই।

অপর এক প্রশ্নের জবাবে সাবেক ছাত্র নেতা রোমান আরো বলেন, ‘কে মনোনয়ন পেলো সেটা আমার কাছে বড় কোন বিষয় নয়। আমার কাছে বড় বিষয়ই হলো যেই নৌকা পায় জাতির পিতা বঙ্গবন্ধুর সেই নৌকা প্রতীকের জয় নিশ্চিত করতে দলের সকল পর্যায়ের নেতাকর্মীদের নিয়ে যুবফোর্স গঠনের মধ্যে দিয়ে এখন থেকেই কাজ শুরু করেছি মাত্র।’

শেয়ার করে আমাদের সঙ্গে থাকুন
  • 36
    Shares