চাঁদপুরে ভোক্তা অধিদপ্তরের সেমিনার অনুষ্টিত

ক্রাইম প্রতিদিন, আনোয়ারুল হক, চাঁদপুর : জাতীয় ভোক্তা অধিকার সংরক্ষণ অধিদপ্তর এর সহযোগীতায়, ভোগ্যপণ্য বিষয়ে সচেতনতা বাড়াতে “ভোক্তা অধিকার সংরক্ষণ আইন-২০০৯” এর আলোকে চাঁদপুরে আলোচনা সভা সোমবার ৪ সেপ্টেম্বর বেলা সাড়ে ১১টায় সদর উপজেলা নিবার্হী কর্মকর্তার কার্যালয়ে অনুষ্ঠিত হয়েছে।

অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্য রাখেন বানিজ্য মন্ত্রনালাধীন জাতীয় ভোক্তা অধিকার সংরক্ষণ অধিদপ্তরের যুগ্ন সচিব ও পরিচালক (কার্যক্রম ও গবেষণাগার) ড.মো:শাহাদাৎ হোসেন। তিনি তার বক্তব্য বলেন, ভোক্তার অধিকার নাগরিক অধিকার। পরিশোধিত মূল্যের সমপরিমান পণ্য ও সেবা পাওয়া প্রত্যেক ভোক্তার ন্যায্য অধিকার। কারো দয়ার দান নয়। কোন ভোক্তাই প্রতারিত হতে চান না। প্রতারনা আর ব্যবসা এক নয়। প্রতারকরা শুধুই প্রতারক। তারা কোন পরিবার, সমাজ, এলাকা, বংশ, ধর্ম কিংবা দলের প্রতিনিধিত্ব করে না, পরিচয়ও বহন করে না।এরা দুষ্কিৃতিকারী, এরা দেশ ও জাতীর শত্রু, এরা সমাজদ্রোহী, দেশদ্রোহী। প্রত্যেক ভোক্তারই নিজস্ব কিছু কর্তব্য রয়েছে। তাই প্রতিটি নাগরিকের পণ্য সম্পর্কে সচেতন না হলে নিজের অধিকার প্রতিষ্ঠা সম্ভব নয়। আপনি যদি প্রতারিত হয়েছেন বলে মনে করেন, তবে অবশ্যই আপনি কর্তৃপক্ষের নিকট অভিযোগ দায়ের করতে পারেন। তাই সকলকে নিজ নিজ দায়িত্ব সম্পর্কে সচেতন হতে হবে।

তিনি আরো বলেন ,আমরা প্রতিটি নাগরিক কোনো না কোনোভাবে ভোক্তা। মুদি দোকান, ফার্মেসী, কনফেকশনারী, মাংস বিক্রেতা, কাঁচা মালের দোকানদার, বিপণী বিতানসহ সকল প্রতিষ্ঠানের কর্ণধার যদি সৎ না হন এবং ক্রেতাকে সঠিক ও গুণগতমান সম্পন্ন পণ্যটি প্রদান না করেন, তবে তিনি নিজেও কোনো না কোনোভাবে প্রতারিত হবেন। তাই প্রতিটি নাগরিকের পণ্য সম্পর্কে সচেতন না হলে নিজের অধিকার প্রতিষ্ঠা সম্ভব নয়।

সভায় সদর উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান দেওয়ান মো.সফিকুজ্জামানের সভাপতিত্বে ও সদর উপজেলার সহকারি কমিশনার(ভূমি) অভিষেক দাসের পরিচালনায় উপস্থিত ছিলেন, ক্রাইম প্রতিদিন পত্রিকার সম্পাদক ও প্রকাশক এ.জেড.এম. মাইনুল ইসলাম পলাশ, সদর উপজেলা প্রকল্প কর্মকর্তা মো: রফিকুল ইসলাম, সহকারি মৎস্য কর্মকর্তা ফিরোজ আহমেদ মৃর্ধা ও চাঁদপুর জেলা জাতীয় ভোক্তা অধিকার সংরক্ষণ অধিদপ্তরের কর্মকর্তাবৃন্দ।

শেয়ার করে আমাদের সঙ্গে থাকুন
  • 136
    Shares